সাদুল্যাপুরে ভিন্ন কায়দায় চাদা দাবি, থানায় অভিযোগ -দৈনিক বাংলার অধিকার

শেখ মো: সাইফুল ইসলাম গাইবান্ধা জেলা প্রতিনিধি:
  • আপডেট টাইম : বুধবার, ১৬ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • ৩২৯ বার পঠিত

শেখ মো: সাইফুল ইসলাম: (গাইবান্ধা)

গাইবান্ধায় বিভিন্ন মামলার সাজাপ্রাপ্ত আসামী আব্দুর সালাম বাহীনির কবলে অসহায় কে,ইউ,এম আব্দুল্লাহ।
সাদুল্যাপুর উপজেলার তাজপুর গ্রামের মৃত আব্দুর রাজ্জাক মিয়ার পুত্র বিভিন্ন মামলার সাজাপ্রাপ্ত আসামী প্রভাবশালী আব্দুর সালম দীর্ঘদিন থেকে চাঁদাবাজিসহ সুধের টাকার ব্যবসা ও বিভিন্ন অপকর্মের সঙ্গে জড়িয়ে থাকায়।
ফলে সাদুল্যাপুর উপজেলায় বিভিন্ন অপকর্মের সংখ্যা বৃদ্ধি পায়। 
আব্দুর সালাম অপরাধ মূলক কাজ করতে করতে বর্তমানে তিনি সাদুল্যাপুর উপজেলায় আওয়ামীলীগের সু-দিনের মৌসুমী নেতা হয়ে ব্যাপক অনিযোম ও অসহায় মানুষের উপর জুলুম করেই চলছেন।
এই মৌসুমী নেতা আব্দুর সালাম উপজেলার চাদ করিম গ্রামের মৃত মকবুল হোসেনের পুত্র কে,ইউ,এম আব্দুল্লাহর নিকট থেকে দীর্ঘ ৫ বছর পুর্বের হাওলাতি লেনদেন কে কেন্দ্র করে ২৫ হাজার টাকা বিভিন্ন ভাবে চাদা দাবি করে থাকেন।
দাবিকৃত চাদার টাকা দিতে অর্শিকার করলে
এক পর্যায়ে বিভিন্ন ভাবে বিভিন্ন ফোন নাম্বার থেকে হুমকি প্রদাণ করতে থাকেন সালাম বাহীনি।
পরবর্তী সালাম ও তার সন্ত্রাসী বাহীনি ক্ষিপ্ত হয়ে একক সময় একক ধরনের অর্থ দাবি করে আচ্ছেন।
এক পর্যায় কে,ইউ,এম আব্দুল্লাহ ঐ চক্রের হাত থেকে বাচতে থানার সরাপন্য হয়ে একটি অভিযোগ দায়ের করলে, সালাম বাহীনি কে, ইউ, এম আব্দুল্লাহর পরিবারের উপর নিম্ন চাপ শিষ্টি করেন।
এবিষয়ে স্থানীয় এলাকাবাসী ও বিভিন্ন সুত্রে জানা যায়, কয়েক বার হাজতে থেকে সালামের কলিজা বড় হয়।
ঠিক তখন থেকে সালাম সন্ত্রাসী বাহিনী ও আওয়ামীলীগের পরিচয়ে অসহায় পরিবার গুলির উপর নির্যাতন চালাতে থাকেন।
এমনকি জমি দখল, পাওনা টাকা আদায়, মারপিট করা, হুমকি প্রদর্শন করা, এমন ধরনের কাজ করাই তার কাজ বলে জানা যায়।
এবিষয়ে তদন্তকারী এস.আই মাহবুবুর আলমের সঙ্গে কথা হলে তিনি বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, যেহেতু হুমকির বিষয় তাই অভিযোগের তদন্ত রিপোর্ট আদালতে প্রসিকিউশন দেয়া হয়েছে বলে জানানিয়েছেন তিনি

Please Share This Post in Your Social Media

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর