রাজশাহী পুলিশের ৬৬৭ কন্সটেবলকে একযোগে বদলি

Reporter Name
  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ৬ জানুয়ারি, ২০২২
  • ২০০ বার পঠিত

রাজশাহী পুলিশের ৬৬৭ কন্সটেবলকে একযোগে বদলি

কাজী এনায়েত, রাজশাহী অফিস:

রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশের (আরএমপি) থানা ও ফাঁড়ির ৬৬৭ জন কনস্টেবলকে একদিনে বদলি করা হয়েছে। গতকাল বুধবার রাতে এ গণবদলি করা হয়।

পলিশের একাধিক সূত্র বলছে, আরএমপি পুলিশের মাঝে শৃঙ্খলা ফিরিয়ে আনতে পুলিশ কমিশনার আবু কালাম সিদ্দিক এ সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেন। এরই ধারাবাহিকতায় এর আগে একযোগে ২১৮ জন এসআই, এএসআইকে বদলি করা হয়।

বদলি আদেশ পাওয়া কনস্টেবলদের আজকের মধ্যেই স্ব-স্ব থানা ও ফাঁড়িতে যোগাদন করতে বলা হয়েছে।

এর আগে গত ২১ ডিসেম্বর বিষয়টি নিশ্চিত করেছিলেন পুলিশ কমিশনার। বিষয়টি স্বীকার করে মহানগর পুলিশের কমিশনার আবু কালাম সিদ্দিক বলেন, আমি এখানে যোগদানের পর থেকেই প্রায় দেড় বছর সময় দিয়েছে থানায় কর্মরত পুলিশ সদস্যদের। কিন্তু অনেকেই নানা বিতর্কে থেকে সরে আসতে পারেননি। ফলে এখন আর কাউকে সময় দেওয়া যাবে না। থানায় কর্মরত এসআই, এসআই থেকে শুরু করে কনস্টেবলদেরও বদলি করা হবে। এক কথায় ঢেলে সাজানো হবে আরএমপি পুলিশকে।

পুলিশ কমিশনার আরও জানান, আরএমপিতে প্রায় তিন হাজার পুলিশ সদস্য আছে। এদের কাউকেই আর বর্তমান থানায় রাখা হবে না। চোখ বন্ধ করে এদের বদলি ফাইলে স্বাক্ষর করছি। সবাইকে পর্যায়ক্রমে অন্য থানায় বদলি করা হবে। এরই ধারাবাহিকতায় গত ২১ ডিসেম্বর ২১৮ জন এসআই, এএসআইকে বদলি করা হয়ে বিভিন্ন থানায়।

সূত্রগুলো আরও জানায়, বর্তমান পুলিশ কমিশনার আবু কালাম সিদ্দিক রাজশাহী মহানগরীতে যোগদানের পর থেকেই আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে নানা চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন। এর মধ্যে চাঞ্চল্যকর ঘটনাগুলোর দ্রুত ক্লু উদ্ধারে তিনি নগরীকে সিসি ক্যামেরার আওতায় নিয়ে আসেন। এছাড়াও পুলিশের সাইবার ক্রামইম ইউনিটকে ঢেলে সাজানোর ফলে চুরি, ছিনতাইয়ের ঘটনাগুলোও কমে আসতে থাকে। কিন্তু এতোকিছুর পরেও নগরীর ১২টি থানায় কর্মরত অনেক পুলিশ সদস্য নানা অপকর্মে জড়িয়ে পড়েন। এদের বিষয়ে তথ্য অনুসন্ধানে পুলিশ কমিশনারের নির্দেশে গোপনে তদন্ত শুরু করা হয়। এতে অনেকের বিরুদ্ধেই বেরিয়ে আসতে থাকে চাঞ্চল্যকর নানা তথ্য। কারো কারো বিরুদ্ধে সহকর্মীদের সঙ্গে পরোকীয়াতেও জড়িয়ে পড়ার অভিযোগ ওঠে। এরই মধ্যে নগরীর মালোপাড়া পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ ইফতেখার আলমের লিঙ্গ কর্তনের ঘটনাও ঘটে। এসব বিষয়ে মহানগর পুলিশের সাফল্যগুলো ম্লান হতে শুরু করে। ফলে পুলিশ কমিশনার সব থানার পুলিশ সদস্যদের গণবদলির সিদ্ধান্ত নেন।

Please Share This Post in Your Social Media

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর